You are here
Home > প্রচ্ছদ > ইলিশের দাম তুলনামূলক কম, সময়ের সঙ্গে সঙ্গে এ দাম আরও বাড়বে

ইলিশের দাম তুলনামূলক কম, সময়ের সঙ্গে সঙ্গে এ দাম আরও বাড়বে

মাছের রাজা ইলিশের চাহিদা সবসময় থাকে। তবে সবসময় দাম থাকে না নাগালে। বর্তমানে দাম তুলনামূলক কম। তাই এখনই সময় খাওয়ার এবং ফ্রিজ ভরার!

সরেজমিন রাজধানীর কারওয়ানবাজার আড়ৎ ঘুরে জানা যায়, যাদের ভোজে ইলিশ প্রিয়, তাদের জন্য সুখবর। এখনই সময় প্রাণ ভরে খাওয়ার। মৌসুম শেষ হওয়ার অল্প কিছুদিন বাকি। তাই ফ্রিজে ভরে রাখতেও কেনা যেতে পারে সাধ্য মতো।

বিক্রেতারা বলছেন, মাঝে ইলিশ ধরা বন্ধ ছিল সরকারি আদেশে। তখন দাম কিছুটা বেশি ছিল। তবে এখন আবার দাম কমেছে জেলেরা জাল ফেলতে পারায়। যদিও গত সপ্তাহের চেয়ে এ সপ্তাহে দাম কেজি প্রতি একশ থেকে দেড়শ টাকা বেড়েছে। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে এ দাম আরও বাড়বে।

খুচরা বিক্রেতারা বলছেন, ৭শ গ্রাম ওজনের ইলিশ বিক্রি হচ্ছে ৬শ টাকায়, যা গত সপ্তাহে ছিল ৫শ থেকে সাড়ে ৫শ।

৫শ গ্রাম ওজনের ইলিশ বিক্রি হচ্ছে ৩শ টাকায়, গত সপ্তাহে ছিল ২শ ৫০ টাকা। এক কেজি ওজনের ইলিশ বিক্রি হচ্ছে এক হাজার টাকায়, গত সপ্তাহে ছিল ৯শ থেকে সাড়ে ৯শ টাকা।

আর এক কেজির বেশি ওজনের ইলিশ বিক্রি হচ্ছে এক হাজার ২শ টাকা কেজি দরে, যা গত সপ্তাহে বিক্রি হতো এক হাজার টাকা থেকে এক হাজার একশ করে।

বিক্রেতা মো. সেলিম বলেন, এক সপ্তাহ পরে আমদানি কইমা যাবো। তখন দামও বারবো। গত সপ্তাহেও কেজিতে একশ থেকে দেড়শ টেকা কম ছিল। এহন দিন যতো যাইবো দামও বাড়বো। এখনই কম দামে কিনে নেওয়ার শেষ সুযোগ।

বিক্রেতা মো. মন্টু বলেন, চাঁদপুরের মাছের দাম অন্য একালার মাছের থেকে বেশি। তবে এহন কাস্টমার আগের চেয়ে কম।

Leave a Reply

Top