You are here
Home > প্রচ্ছদ > সত্যজিৎ রায়ের জন্মদিনে শ্রদ্ধা

সত্যজিৎ রায়ের জন্মদিনে শ্রদ্ধা

স্টাফ রিপোর্টারঃ ছবি, ক্যালিগ্রাফি, বইয়ের প্রচ্ছদ, সায়েন্স ফিকশন, গোয়েন্দা কাহিনি, তথ্যচিত্র, সংগীত—কোথায় নেই তিনি? এমনকি ছবির চিত্রনাট্য থেকে সংগীত সব জায়গায় যাঁর বিচরণ, তিনি সত্যজিৎ রায়। আজ এই বাংলা চলচ্চিত্রের পথিকৃতের জন্মদিন। সেলুলয়েডে অপু স্রষ্টার ৯৬তম জন্মবার্ষিকীতে তাঁকে জানাই শ্রদ্ধা।

১৯২১ সালে কলকাতার গড়পারে জন্ম। পূর্ব পুরুষের ভিটা ছিল বাংলাদেশের কিশোরগঞ্জে। তাঁর বাবা বাংলা সাহিত্যের অমর দিকপাল সুকুমার রায়। দাদাও সাহিত্যের আরেক পথিকৃৎ উপেন্দ্রকিশোর রায়।
কলকাতার প্রেসিডেন্সি কলেজের পাশাপাশি পড়ালেখা করেন রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের শান্তিনিকেতনে। বাণিজ্যিক চিত্রকর হিসেবে কর্মজীবন শুরু করলেও চলচ্চিত্রকার হিসেবে নিজেকে চেনাতে শুরু করেন। বিখ্যাত পরিচালক জঁ রনোয়ার সঙ্গে ভারতে চলচ্চিত্রে কাজ করেন। এরপর বিদেশ ভ্রমণে গিয়ে ভিত্তরিও ডি সিকার ‘বাই সাইকেল থিভস’ দেখে চলচ্চিত্র নির্মাণে আগ্রহী হন। প্রথম চলচ্চিত্র তৈরি করেন বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের ‘পথের পাঁচালি’ উপন্যাস অবলম্বনে একই নামে। এরপর একের পর এক চলচ্চিত্র নির্মাণ করেন। বাংলা চলচ্চিত্রের অন্যতম প্রাণ পুরুষ হিসেবে স্বীকৃতি পান।
অসংখ্য পুরস্কারের পাশাপাশি অস্কার সম্মাননা তাঁর জীবনের সেরা স্বীকৃতি। বাংলা চলচ্চিত্রের এই দিকপালকে শ্রদ্ধা জানানো যেতে পারে তাঁর সিনেমা দেখার মাধ্যমে। চলুন না দেখে আসা যাক, অপু ট্রিলজি, ‘গুপি গাইন বাঘা বাইন’, ‘জলসা ঘর’, ‘নায়ক’, ‘দেবী’, ‘তিন কন্যা’, ‘কাঞ্চনজঙ্ঘা’, ‘চারুলতা’, ‘জন অরণ্য’, ‘হীরক রাজার দেশে’ ছবিগুলো।

Leave a Reply

Top