You are here
Home > সারা বাংলা > জেলার খবর > রাজাপুরে তাতীলীগের ভাইস চেয়ারম্যান পদে জাহিদ আওয়ামঅলীগের ব্যানারে প্রার্থী হতে দোয়া চাইলেন

রাজাপুরে তাতীলীগের ভাইস চেয়ারম্যান পদে জাহিদ আওয়ামঅলীগের ব্যানারে প্রার্থী হতে দোয়া চাইলেন

রাজাপুর প্রতিনিধিঃ

ঝালকাঠির রাজাপুরে আওয়ামীলীগের ব্যানারে তাঁতীলীগের জেলা সাধারন সম্পাদক জাহিদুল ইসলাম জাহিদ ভাই ভাইসচেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয়ে এলাকায় দোয়া কামনায় দলীয় কর্মীদের কাছে মতবিনিময় করেন।তিনি এ বছর উপজেলা নির্বাচনে অংশ গ্রহন করার মত ব্যাক্ত করেন।রাজাপুর তাঁতীলীগের সভাপতি কে এম আওলাদ হোসেন,সাধারন সম্পাদক  রনি বিশ্বাস,রাজাপুর ইউনিয়ন তাঁতীলীগের সভাপতি জাকির সিকদার,সাধারন সম্পাদক মিশু,গালুয়া ইউনিয়ন তাঁতীলীগের সভাপতি জামাল,বড়ইয়া ইউনিয়ন তাঁতীলীগের সভািপতি মূসা,মঠবাড়িয়া ইউনিয়ন তাঁতীলীগের সভাপতি কাওসার,সাতুিরয়া ইউনিয়ন তাঁতীলীগের সভাপতি নাসির,শুক্তাগড় ইউনিয়ন তাঁতীলীগের সভাপিতি বাদল সহ একমত পোষন করে উক্ত সিদ্ধান্ত নিয়ে মাঠে দোয়া কামনায় কাজ শুরু করেন ও ব্যানার টানানো হয়েছে।কেন্দ্রীয় ঢাকা তাঁতীলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক নজরুল ইসলাম পলাশ জানিয়েছেন আমাদের লোকজন ৫/৬ জন এবার নির্বাচনে অংশ নিবে,তাহাদের সুপারিশ করার জন্য বিএইচ হারুন এমপির কাছে যাওয়া হয়েছে তখনই দোয়া কামনা করা হয় যৌথভাবে ।তবে রাজাপুরে ভাইস চেয়ার ম্যান পদে মাঠে আছেন ৭/৮ জন।এদের মধ্যে ছাএলীগের বাপ্পী মৃধা,যুবলীগের আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ সুমন সিকদার,মহিলালীগের নাজনীন আক্তার পাখি,নাসরিন আক্তার হ্যাপী,তাতীলীগের জাহিদ,যুবলীগের সাধারন সম্পাদক ফখরুল ইসলা্ম সহ প্রমূখ।তবে উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে লবিং চলছে ৪/৫ জনে,তাদের মধ্যে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ মনিরুজ্জামান মনির,মিলন মাহামুদ বাচ্চু মৃধা,উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক এড খাইরুল আলম সরফরাজ,উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আফরোজা আক্তার লাইজু সহ প্রমূখ।তবে উপজেলা চেয়ারম্যান পদে বিজয়ী হতে মাঠ পর্যায়ে এগিয়ে আছে উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি মিলন মাহামুদ বাচ্চু মৃধা,যদি নৌকা প্রতিক না পায় বাচ্চু সেক্ষেত্রে স্বতন্ত্র ভাবেও দাড়ালে বিজয়ী হবার সম্ভাবনা বেশি বাচ্চু মৃধার,তবে লবিং এগিয়ে রয়েছে আফরোজা আক্তার লাইজু ও মনিরুজ্জামান,বাচ্চু মৃধার একমাত্র ভরসা বিএচ হারুন এমপির দিকে,জনগন এক কথায় বলেন,যেভাবে রাজাপুরে এমপি নির্বাচনে মিলন মাহামুদ বাচ্চু লোকজন সমাগম করে আওয়ামীলীগের কর্মীদের একত্র করতে পেরেছে তাহা বিগত ১০ বছরে কোন কর্মী দেখাতে পারেনী,সমেতে মিলন মাহামুদ বাচ্চু মৃধাই এবছর উপজেলা চেয়ারম্যান হবার যোগ্য মনে করে এলাকাবাসী।মনিররুজ্জামান মনির বলেন রাজাপুরের উন্নয়নের ধারািবাহিকতা বজায় রাখতে জনগন তাকে চায়।এদিকে আফরোজা আক্তার পারুল বলেন,আওয়ামীলীগের কর্মী হিসেবে ছোট বড় সবাই চিনে জানে,জেলা থেকে উপজেলায় বেশ পরিচিত পেয়েছি ও জনপ্রিয়তায় এগিয়ে আছি।অপরদিকে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক এড খাইরুল আলম সরফরাজ বলেন ,দলের জন্য কাজ করেছি কোন নির্বাচন করেনী,এবছর নির্বাচনে আমি নৌকা প্রতিক পাইব,কারন আমি তো কোন সময় নির্বাচনে অংশ নেয়নী,এই প্রথম,তাছাড়া সবাই কম বেশি দলীয় ব্যানারে চেয়ারম্যান.ভাইসচেয়ারম্যান ছিল,এখন একমাত্র আমিই বাকী আছি নমিনেশন পাওয়ার জন্য।এলাকায় ঘুরে দেখা গেছে দলীয় প্রতিক যে পাবে আওয়ামীলীগ কর্মীরা সবাই তার কাজ করবে এবং বিজয়ী করবে।তবে রাজনীতিবীদ চিন্তায় আছে কে পাবে দলীয় সুপারিশ।এখন রাজাপুরে সবাই তাকিয়ে আছে দলীয় নমিনেশনের দিকে।আসলে মিলন মাহামুদ বাচ্চু মৃধাই এগিয়ে রয়েছে বিএইচ হারুন এমপির কাছে।

Leave a Reply

Top