You are here
Home > সারা বাংলা > জেলার খবর > ” মুজিব বর্ষ ” ঘোষনা দেওয়ায় প্রধানমন্ত্রী জননেএী শেখ হাসিনার কে জয়দেবপুর থানা সেচ্ছাসেবকলীগের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞা প্রকাশ

” মুজিব বর্ষ ” ঘোষনা দেওয়ায় প্রধানমন্ত্রী জননেএী শেখ হাসিনার কে জয়দেবপুর থানা সেচ্ছাসেবকলীগের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞা প্রকাশ

গাজীপুর প্রতিনিধি ঃ

২০২০ সালে পূর্ণ হবে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী এবং ২০২১ সাল হবে বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর বছর। এ উপলক্ষে আগামী ২০২০-২১ সালকে ‘মুজিব বর্ষ’ হিসেবে পালন করা হবে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শেখ হাসিনা বলেন, ‘২০২০-২১ সাল ‘মুজিব বর্ষ’ হিসেবে পালিত হবে। বছরব্যাপী কর্মসূচি নিয়ে উদযাপিত হবে জন্মশত বার্ষিকী। বিভিন্ন ধরনের প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হবে। বিভাগ জেলা ও ওয়ার্ড পর্যায় পর্যন্ত জাতির জনকের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন করা হবে।’
২০২০-২১ সালকে ” মুজিব বর্ষ ” ঘোষনা দেওয়ায় প্রধানমন্ত্রী জননেএী শেখ হাসিনা কে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞা প্রকাশ করে জয়দেবপুর থানা সেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি প্রাথী মুক্তিযুদ্ধার সন্তান সাইফুল্লাহ শাওন ।তিনি বলেন , জাতির পিতার জন্ম না হলে বাঙালী ও বাংলাদেশের জন্ম হত না।জাতির পিতার একডাকে আমার বাবাও দেশ স্বাধীনের জন্য ভারতে গিয়ে ট্রেনিং করে অস্ত্র ও গোলাবারুদ নিয়ে দেশে ফিরে বেঙ্গল লিবারেশন ফোর্স যোগ দিয়ে আজকে মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক কাকার নেতৃত্বে যুদ্ধ করে দেশ স্বাধীন করে।আমি কোন দিন জাতির পিতাকে দেখি নাই বাবার মুখে অনেক গল্প শোনেছি ১৯৭৫ এর ১৫ আগস্টের পরের দিন জাতির পিতাকে হত্যার প্রতিবাদে আমার বাবা কালো পান্জাবী পড়ার অপরাধে গ্রেফতার করে বিপদগামী আর্মিরা ।এর পর আমার জন্ম হবার পর থেকে কোন দিন আমাদের কালো কাপড় চোপড় পড়তে দিত না কিনেও দিত না।
জাতির পিতার গল্প শোনতে শোনতে এক সময় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের নিজ হাতে গড়া সংগঠন ছাএলীগ করা শুরু করি। জননেত্রীর শেখ হাসিনাকে আমার প্রিয় সংগঠন জয়দেবপুর থানা সেচ্ছাসেবকলীগের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ ও লাল গোলাপারে শুভেচ্ছা জানাচ্ছি।

Leave a Reply

Top