You are here
Home > প্রচ্ছদ > নয়াপল্টনে পুলিশের সাথে বিএনপি নেতাকর্মীদের পুলিশের ধস্তাধস্তি, গ্রেপ্তার ১৪

নয়াপল্টনে পুলিশের সাথে বিএনপি নেতাকর্মীদের পুলিশের ধস্তাধস্তি, গ্রেপ্তার ১৪

স্টাফ রিপোর্টার : ফেনীর মহীপালে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার ফিরতি গাড়িবহরে পেট্রলবোমা হামলার প্রতিবাদে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিএনপির নেতা-কর্মীরা। এ সময় বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীসহ মিছিলে উপস্থিত নেতা-কর্মীদের সঙ্গে পুলিশের ধ্স্তাধস্তি হয়। বিক্ষোভ থেকে বিএনপির অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের ১৪ নেতা-কর্মীকে পুলিশ আটক করেছে বলে দাবি করেছে বিএনপি।

ফেনীতে পেট্রলবোমা হামলার বিষয়ে আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনের পরে তাৎক্ষণিকভাবে এই বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়। পুলিশি বাধা উপেক্ষা করে নেতা-কর্মীরা মিছিল করতে চাইলে তাদের সঙ্গে ধ্স্তাধস্তি হয়। এর আগে সংবাদ সম্মেলনে রুহুল কবির রিজভী অভিযোগ করেন, খালেদা জিয়ার গাড়িবহরে বিপুল মানুষের অংশগ্রহণে ঈর্ষান্বিত হয়ে ক্ষমতাসীন দলের সন্ত্রাসীরা গাড়িবহরে পেট্রলবোমা হামলা করেছে।

রিজভী বলেন, ‘রাস্তার দুই ধারে বিএনপির চেয়ারপারসনকে দেখার জন্য, অভ্যর্থনা জানানোর জন্য এত মানুষ আসবে কেন এই হিংসায়, এই প্রতিহিংসায় তারা অস্থির হয়ে গেছে। কীভাবে এটিকে ঘায়েল করা যায়, কীভাবে জনতার ঢল গণমাধ্যমে দেখানো না যায়, এটার তো নানা কায়দা-কানুন আমরা দেখেছি। তারপরও আরো নানাভাবে আটকানোর পরিকল্পনা নিয়েছে।’

এদিকে বিএনপি এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, প্রতিবাদ মিছিল থেকে জাতীয়তাবাদী শ্রমিক দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুল করিম মজুমদার, ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় নেতা ফরহাদ, শেরেবাংলা নগর থানা ছাত্রদলের নেতা অয়ন, ঢাকা মহানগর পশ্চিম ছাত্রদলের নেতা মিজান, মতিঝিল শ্রমিক দলের নেতা দেলোয়ার হোসেন, স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতা তাহমিদ, হুমায়ুন কবির, ইশতেহার, আব্দুল আল নূর, আজাদসহ ১৪ জন নেতাকর্মীকে আটক করে পুলিশ। বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অবিলম্বে আটক  নেতাদের নিঃশর্ত মুক্তির দাবি জানিয়েছেন।

Leave a Reply

Top