You are here
Home > প্রচ্ছদ > নাটোরের বনপাড়া পৌরসভার ১২ নম্বর ওয়ার্ডের ভোট গ্রহণ স্থগিত

নাটোরের বনপাড়া পৌরসভার ১২ নম্বর ওয়ার্ডের ভোট গ্রহণ স্থগিত


এস,এম ইসাহক আলী রাজু নাটোর জেলা প্রতিনিধিঃ-

নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার বনপাড়া পৌরসভার ১২ নম্বর ওয়ার্ডের আটুয়া ভোট কেন্দ্রের ভোট গ্রহণের ওপর তিন মাসের নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে হাইকোর্ট। একারণে আগামীকাল ২৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত বনপাড়া পৌরসভা নির্বাচনে ১২ নম্বর ওয়ার্ডের ভোট গ্রহণ স্থগিত করেছে নির্বাচন কমিশন।
জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও বনপাড়া পৌরসভার রির্টানিং অফিসার আবুল হোসেন এতথ্য নিশ্চিত করে জানান, মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৮ টার সময় বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশনের নির্বাচন পরিচালনা-২ অধিশাখার যুগ্ম সচিব (চলতি দায়িত্বে) ফরহাদ আহাম্মদ খান স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত একটি চিঠি হাতে পেয়েছেন। চিঠিতে উল্লেখ করা হয়েছে, মাননীয় হাইকোর্ট রিট পিটিশন নং ১৮৫৪৭/২০১৭ এর গত ১৪ ডিসেম্বর তারিখের আদেশে আগামী ২৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠেয় বনপাড়া পৌর নির্বাচনে ১২ নম্বর ওয়ার্ডের আটুয়া ঈদগাহ মাঠে অস্থায়ী ভোট কেন্দ্রটির কার্যকারিতা আদেশের তারিখ হতে তিন মাসের জন্য স্থগিত করায় উক্ত ভোট কেন্দ্রের নির্বাচন স্থগিত করার আইনগত বাধ্যবাধকতা রয়েছে। তবে অন্য কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠানের কোন বাধা নেই।
জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আরো জানান, আগামী ২৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠেয় বনপাড়া পৌর নির্বাচনে ভোট গ্রহনের জন্য নব গঠিত ১২ নম্বর ওয়ার্ডে ভোট কেন্দ্র করার মত কোন প্রতিষ্ঠান ছিল না। তাই আটুয়া ঈদগাহ মাঠে অস্থায়ী ভোট কেন্দ্র স্থাপন করা হয়। কিন্তু গোরস্থানকে ঈদগাহ মাঠ হিসাবে দেখিয়ে সেখানে ভোট কেন্দ্র স্থাপন করার অভিযোগ এনে গোরস্থান ব্যবস্থাপনা কমিটির সাধারণ সম্পাদক আব্দুল গফুর মৃধা এর বিরুদ্ধে হাইকোর্টে রীট করেন। ওই রিটের প্রেক্ষিতে আটুয়া অস্থায়ী ভোট কেন্দ্রের ভোট গ্রহণের ওপর তিন মাসের জন্য নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেন হাইকোর্ট। পরে হাইকোর্টের এ আদেশ পেয়ে নির্বাচন কমিশন ওই ওয়ার্ডের ভোট গ্রহণ স্থগিত করেন।
উপজেলা নির্বাচন অফিস সুত্র জানায়, আটোয়া ও গুড়ুমশৈল এই দুই গ্রাম মিলে বনপাড়া পৌরসভায় নতুন ১২ নং ওয়ার্ড গঠিত হয়। এখানে মোট ভোটার ১৭৫৭ জন। এরমধ্যে আটোয়া গ্রামে ১১৬৭ জন এবং গুড়ুমশৈল গ্রামে ৫৮১ জন ভোটার রয়েছে। এই ওয়ার্ডে মোট ৬ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দিতা করছিলেন। কিন্তু আদালতের নিষেধাজ্ঞার প্রেক্ষিতে ওই ভোট কেন্দ্রের ভোট গ্রহণ স্থগিত করা হয়েছে। তবে অন্য সকল ওর্য়াডে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।
স্থানীয়দের অভিযোগ, নির্বাচন অফিস আটোয়া গোরস্থানকে ঈদগাহ মাঠ দেখিয়ে সেখানে অস্থায়ী ভোট কেন্দ্র স্থাপন করেন। এই ঘটনায় ওই গোরস্থান ব্যবস্থাপনা কমিটির সাধারণ সম্পাদক আব্দুল গফুর মৃধা এর বিরুদ্ধে হাইকোর্টে রীট করেন। এছাড়া গোরস্থানের এক লাখ টাকা আত্মসাতকে কেন্দ্র করে ওই গ্রামবাসীর মধ্যে বিরোধ সৃষ্টি হয়। এনিয়ে আদালতে মামলা চলমান আছে।

Leave a Reply

Top