You are here
Home > প্রচ্ছদ > জাহাঙ্গীরনগরে চলমান সংকটের সমাধান হয়েছে

জাহাঙ্গীরনগরে চলমান সংকটের সমাধান হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টারঃ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে চলমান সংকটের সমাধান হয়েছে বলে জানিয়েছে প্রশাসন ও আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা। দুই পক্ষের মধ্যে দীর্ঘ আলোচনার পর গতকাল বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে এই তথ্য জানানো হয়। মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা আন্দোলন করে আসছিলেন। আন্দোলনের অংশ হিসেবে গতকাল চতুর্থ দিনের মতো সকাল থেকে তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবন অবরোধ করেন। তবে এদিন বিকেলে প্রশাসন শিক্ষার্থীদের সঙ্গে আলোচনায় বসবে, উপাচার্যের এমন আশ্বাসে তাঁরা সাময়িকভাবে অবরোধ প্রত্যাহার করেন।

বিকেল পাঁচটার দিকে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের সঙ্গে প্রশাসনের আলোচনা শুরু হয়। রাত ১০টা পর্যন্ত টানা আলোচনা চলে। আধঘণ্টা বিরতি দিয়ে রাত সাড়ে ১০টার দিকে ফের আলোচনা শুরু হয়। দিবাগত রাত ১টা পর্যন্ত আলোচনা চলে। আলোচনা শেষে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর তপন কুমার সাহা বলেন, আলোচনার ভিত্তিতে দুই পক্ষের মধ্যে একটি যৌক্তিক ও সম্মানজনক সমাধান হয়েছে। আন্দোলনকারী শিক্ষার্থী ও সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সাধারণ সম্পাদক সুস্মিতা মরিয়ম বলেন, সংকটের সমাধান হয়েছে। শুক্রবার সংবাদ সম্মেলন করে এ বিষয়ে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের সবশেষ অবস্থান জানানো হবে।

গত ২৬ মে ভোরের দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের মীর মশাররফ হোসেন হলসংলগ্ন সিঅ্যান্ডবি এলাকায় সড়ক দুর্ঘটনায় নাজমুল হাসান ও মেহেদি হাসান নামের দুই শিক্ষার্থী নিহত হন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে উপাচার্যের বাসভবনে ভাঙচুর ও শিক্ষক লাঞ্ছনার অভিযোগে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে প্রশাসন মামলা করে। গত ২৭ মে রাতে ৫৪ জন শিক্ষার্থীর বিরুদ্ধে মামলা করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। আসামিদের মধ্যে ১৪ জন নারী শিক্ষার্থী। সেই মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে বিভিন্ন বামপন্থী ছাত্র সংগঠনের নেতা-কর্মী এবং সাধারণ শিক্ষার্থীরা আন্দোলন চালিয়ে আসছেন।

Leave a Reply

Top