You are here
Home > নির্বাচন > গণফোরামে গেলেন সাবেক ১০ সামরিক কর্মকর্তা কিন্তু কেন ?

গণফোরামে গেলেন সাবেক ১০ সামরিক কর্মকর্তা কিন্তু কেন ?

১৯ নভেম্বর ২০১৮, ২০:২৯নিজস্ব প্রতিবেদক  

সুষ্ঠু নির্বাচনের মধ্য দিয়ে দেশে স্থিতিশীলতা ফিরিয়ে আনার উদ্দেশ্যে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম দল গণফোরামে যোগ দিয়েছেন অবসরপ্রাপ্ত ১০ জন সামরিক কর্মকর্তা। আজ সোমবার বিকেলে রাজধানীর মতিঝিলে গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেনের চেম্বারে এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তাঁরা আনুষ্ঠানিকভাবে দলটিতে যোগ দেন।

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের আহ্বায়ক ও গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেন অন্য কাজে ব্যস্ত থাকায় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন না।

এ সময় গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী ফুল দিয়ে সাবেক সামরিক কর্মকর্তাদের দলে স্বাগত জানান। তিনি বলেন, দেশের কঠিন এ সময়ে দলকে আরো শক্তিশালী করার জন্য সাবেক সামরিক কর্মকর্তারা গণফোরামে যোগ দিয়েছেন। আমরা সেনাবাহিনী ও বিমান বাহিনীর ১০ জন অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে স্বাগত জানিয়েছি। তারা গণফোরামে যোগদানের মাধ্যমে রাজনীতিতে নতুন যাত্রা শুরু করেছেন। আমরা দেশ এবং গণতন্ত্র ও মানুষের ভোটের অধিকার পুনঃপ্রতিষ্ঠার জন্য একসাথে কাজ করব। গণফোরামসহ জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট দেশের সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য যে আন্দোলন করছে এখন থেকে সাবেক এই সেনাকর্মকর্তারাও সে আন্দোলনে সম্পৃক্ত হলেন।

সুব্রত চৌধুরী আরো বলেন, ‘সামগ্রিকভাবে দেশের উন্নয়নের জন্য এবং সাথে সাথে গণতন্ত্র আমরা প্রতিষ্ঠা করতে পারি সেলক্ষ্যে এই আন্দোলনের সঙ্গে তাঁরা (সাবেক ১০ সামরিক কর্মকর্তা) সম্পৃক্ত হলেন।’

গণফোরামে যোগ দেওয়ার পর মুক্তিযোদ্ধা ও অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট কর্নেল খন্দকার ফরিদুল আকবর বলেন, দেশের মঙ্গলের উদ্দেশ্যেই ড. কামালের আদর্শকে শ্রদ্ধা জানাতেই তাঁরা গণফোরামে যোগ দিয়েছেন।

যোগদানের সময় গণফোরামের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জগলুল হায়দার আফ্রিক, এএইচএম শফিকউল্লাহ, প্রশিক্ষণবিষয়ক সম্পাদক রফিকুল ইসলাম পথিক ও নির্বাহী কমিটির সদস্য মেজর (অব.) আমিন আহমেদ আফসারিসহ দলের জ্যেষ্ঠ নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

খন্দকার ফরিদুল আকবর বলেন, ‘আমাদের উদ্দেশ্য হচ্ছে দেশের মঙ্গলের জন্য কাজ করা। এবং দেশ বিভীষিকাময় একটা মানে গোলযোগের মধ্যে পতিত হতে পারে। কিন্তু আমরা যদি থাকি ইনশা আল্লাহ দেশের শৃঙ্খলা সর্বাত্মক রক্ষা হবে।’

গণফোরামে যোগদানকারী সাবেক সেনা কর্মকর্তা হলেন মুক্তিযোদ্ধা লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.) খন্দকার ফরিদুল আকবর, লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.) শেখ আকরাম আলী, লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.) মোহাম্মদ শহিদুল্লাহ, লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.) এএফএম নুরুদ্দিন, মেজর (অব.) মাসুদুল হাসান, মেজর (অব.) মো. ইমরান, মেজর (অব.) মো. বদরুল আলম সিদ্দিকী, স্কোয়াড্রন লিডার (অব.) মো. ফোরকান আলম খান, স্কোয়াড্রন লিডার (অব.) মো. হাবিব উল্লাহ ও স্কোয়াড্রন লিডার (অব.) মো. মাহমুদ।

এর আগে আওয়ামী লীগের সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়ার ছেলে ড. রেজা কিবরিয়া গতকাল রোববার গণফোরামে যোগ দেন। তিনি আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থী হয়ে হবিগঞ্জ-১ আসন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য ড. কামালের কাছে দলীয় মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

Leave a Reply

Top