You are here
Home > আন্তর্জাতিক > কাতারের পাশে দাঁড়াল মরক্কো, খাদ্য পাঠানোর ঘোষণা

কাতারের পাশে দাঁড়াল মরক্কো, খাদ্য পাঠানোর ঘোষণা

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ অবরুদ্ধ কাতারবাসীর জন্য খাদ্যবাহী বিমান পাঠানোর ঘোষণা দিয়েছে আফ্রিকার মুসলিম দেশ মরক্কো। মূলত কাতারের সঙ্গে সৌদি আরবসহ বেশ কয়েকটি মুসলিম দেশ কূটনৈতিক ও বাণিজ্যিক সম্পর্কচ্ছেদের কারণে আমদানি নির্ভর দেশটিতে খাদ্য সংকটের পরিস্থিতি তৈরি হয়। আর এমন পরিস্থিতিতে ইরান ও তুরস্কের পর এবার কাতারের পাশে দাঁড়াল মরক্কো। এর আগে চলমান সংকট নিরসনে মধ্যস্ততার প্রস্তাবও দিয়েছিল দেশটি।

মরক্কোর পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়, ‘রমজান মাসে মুসলিম নাগরিকদের প্রতি ভ্রাতৃত্ববোধের অবস্থান থেকে কাতারে প্রয়োজনীয় খাদ্য পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। আর এ পদক্ষেপ দোহার সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক আরো মজবুত করবে। ’

এর আগে কাতারে খাদ্য পাঠানোর ঘোষণা দিয়েছে তুরস্ক। ইরান ইতিমধ্যে খাদ্যবাহী পাঁচটি বিমান রাজধানী দোহায় পাঠিয়েছে। প্রতিদিন ১০০ টন করে ফল ও সবজি পাঠানোর পরিকল্পনা নিয়েছে।  শিগগিরই এ প্রক্রিয়া শুরু হবে বলে জানিয়েছে ইরান সরকার।

উপসাগরীয় অঞ্চলের ছোট্ট দেশ কাতার খাদ্য ও পানির জন্য সৌদি আরব ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের মত প্রতিবেশীদেশগুলোর ওপর নির্ভরশীল। সাম্প্রতিক রাজনৈতিক উত্তেজনা ও নিষেধাজ্ঞার জেরে দেশটির খাদ্য আমদানির সুযোগ বন্ধ রয়েছে। এর ফলে সম্ভাব্য খাদ্য সঙ্কটের আশঙ্কা করছেন দেশটির নাগরিকরা। নিষেধাজ্ঞার পরপরই প্রয়োজনীয় খাদ্য ও পানির সঙ্কট এড়াতে মিত্র দেশ ইরান ও তুরস্কের সহায়তা চায় দোহা প্রশাসন। দেশ দুটির পাশাপাশি নিজে থেকেই কাতারের পাশে দাঁড়িয়েছে অপর মুসলিম দেশ মরক্কো।

সূত্র: রয়টার্স ও আল জাজিরা

Leave a Reply

Top